মেনু নির্বাচন করুন
  বাংলাদেশ শিশু একাডেমী সিলেট জেলা শাখা মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অধীনস্ত  একটি প্রতিষ্ঠান। শিশুদের শারীরিক-মানসিক বিকাশ ও চারিত্রিক উৎকর্ষ সাধনের লক্ষ্যে ১৯৭৬ সালে ঢাকায় শিশু এবাডেমী প্রতিষ্ঠিত হয়। বর্তমানে শিশু একাডেমী জাতিসংঘ শিশু অধিকার সনদের আলোকে শিশুদের সামগ্রিক অধিকারগুলো নিয়েও কাজ করছে।   পুরাতন ২০টি জেলার একটি জেলা হিসাবে ১৯৮১ সালের ৯ এপ্রিল সিলেট জেলা শাখার যাত্রা শুরু হয়।   সব ধরণের শিশুদের নিয়েই শিশু একাডেমী কাজ করছে। সুপ্ত প্রতিভা বিকাশে বছরব্যাপী রয়েছে শিশু একাডেমী নানা কার্যক্রম।   জনাব  সাইদুর রহমান ভূঞা ৩১ ডিসেম্বর ২০১৩  থেকে  অদ্যাবধি বাংলাদেশ শিশু একাডেমী, সিলেট জেলা শাখার জেলা সংগঠক (জেলা শিশু বিষয়ক কর্মকর্তা) পদে কর্মরত আছেন।

সাধারণ তথ্য

**বাংলাদেশ শিশু একাডেমী, সিলেট জেলা শাখা সিলেটেরে প্রাণকেন্দ্র রিকাবীবাজারস্থ কবি নজরুল অডিটোরিয়ামের দোতলায় অবস্থিত।ম

 

শিশুদের মানষিক বিকাশে বছরব্যাপী বিভিন্ন অনষ্ঠানমালার পাশাপাশি বিভিন্ন সাংস্কৃতিক প্রশিক্ষণেরও ব্যবস্থা রয়েছে।

 

সাংস্কৃতিক প্রশিক্ষণ সমূহ   

                                         ১) সঙ্গীত- ক) প্রথম বর্ষ(বিশেষ), খ) প্রথম বর্ষ, গ) দ্বিতীয় বর্ষ, ঘ) তৃতীয় বর্ষ

                                        ২)  র্নৃত্য -  ক) প্রথম বর্ষ(বিশেষ), খ) প্রথম বর্ষ, গ) দ্বিতীয় বর্ষ, ঘ) তৃতীয় বর্ষ

                                        ৩) আবৃত্তি- ক) প্রথম বর্ষ, খ) দ্বিতীয় বর্ষ, গ) তৃতীয় বর্ষ

                                        ৪) চিত্রাংকন- ক) প্রথম  বর্ষ, খ) দ্বিতীয় বর্ষ, গ) তৃতীয় বর্ষ

                                        ৫) তবলা- ক) প্রথম বর্ষ, খ)  দ্বিতীয় বর্ষ

                                        ৬) গীটার- ক) প্রথম বর্ষ, খ)  দ্বিতীয় বর্ষ

সাংগঠনিক কাঠামো

কর্মকর্তাবৃন্দ

ছবিনামপদবিফোনমোবাইলইমেইল
সাইদুর রহমান ভূঞাজেলা সংগঠক (জেলা শিশু বিষয়ক কর্মকর্তা)০৮২১-৭১৮০৩৪০১৭১১২৭৬৯৬৭/০১৮৩৮৪২১৮০৭ bsasylhet@gmail.com

কর্মচারীবৃন্দ

ছবিনামপদবি
দিল আফরোজ কাঞ্চিলাইব্রেরিয়ান কাম মিউজিয়াম কিপার
শ্যমল চন্দ্র পালঅফিস সহকারী তথা মুদ্রাক্ষরিক
মো: আব্দুল মান্নান দুলুঅফিস সহায়ক (অস্থায়ী)
মো: মুক্তার মিয়া নাইট গার্ড

প্রকল্পসমূহ

 

   

 

০১.

জাতীয় শিশু টাসফোর্স (NCTF):

 

শিশু একাডেমীর সার্বিক তত্ত্বাবধানে এ কর্মসুচির মাধ্যমে কিশোর ও তরুণ  সদস্যবৃন্দ নিম্নোক্ত কার্যক্রম সম্পাদন  করে থাকে।

 

(ক)

শিশু অধিকার পরিস্থিতি  মনিটরিং

 

(খ)

শিশু অধিকার প্রতিষ্ঠায় আন্দোলনে অগ্রণী ভূমিকা গ্রহণ

 

(গ)

শিশু অধিকার সনদ কতটুকু বাস্তবায়ন হচ্ছে তা মনিটরিং

 

(ঘ)

HIV/এইডস ও মাদক প্রতিরোধ ও সচেতনতা কার্যক্রম এবং

 

(ঙ)

ঝুকিপূর্ণ শিশুশ্রম শিশু পাচার ও বাল্য বিবাহ প্রতিরোধ।

০৩.

 আরলি লারনিং ফর  ফর চাইল্ড ডেভেলপমেন্ট প্রকল্প :

 

এ প্রকল্পের আওতায় পরিচালিত কার্যক্রমগুলো হলো-

 

(ক)

যেখানে শিক্ষার সুবিধা পৌঁছেনি সেকল জায়গায় সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের জন্য শিশু বিকাশ ও প্রাক-প্রাথমিক শিক্ষা কার্য ক্রম পরিচালনা

 

(খ)

সিলেট জেলার গোয়াইনঘাট, জৈন্তাপুর, ফেন্সুগঞ্জ ও সিলেট সদর উপজেলায় বর্তমানে এ কার্যক্রম চালু আছে

                 (গ)         শিশু একাডেমীর তত্তাবধানে এবং ইউনিসেফের অর্থায়নে সিলেটে ৬৪টি সেন্টার চলছে ব্র্যাকের ব্যাবস্থাপনায়

যোগাযোগ

জেলা সংগঠক(জেলা শিশু বিষয়ক কমকর্তা)

বাংলাদেশ শিশু একাডেমী

রিকাবীবাজার, সিলেট

(কবি নজরুল অডিটোরিয়ামের দোতলা)

টেলিফোন: ০৮২১-৭১৮০৩৪।

ই-মেইল: bsasylhet@gmail.com

কী সেবা কীভাবে পাবেন

 

ভর্তি কার্যক্রম:

সাংস্কৃতিক প্রশিক্ষণ : সংগীত, নৃত্য,  চিত্রাংকন, আবৃত্তি ও গীটার বিষয়ক প্রশিক্ষণ

*  গীটার ও তবলা দুই বছর, চিত্রাংকন ও আবৃত্তি তিন বছর এবং নৃত্য ও সংগীত চার বছর মেয়াদী কোর্স।

*   ফেব্রুয়ারি থেকে জানুয়ারি পর্যন্ত প্রশিক্ষণ কার্যকাল ধরা হয়। ভর্তি প্রক্রিয়া শুরু হয় ডিসেম্বরের মাসের শেষ দিকে।

*   ভর্তির বয়সসীমা সর্বনিম্ন ৫ এবং সর্বোচ্চ ১৪ বছর।  তবে নৃত্য ও তবলা বিভাগে সর্বনিম্ন বয়সসীমা ৭ বছর।

*   প্রতি বিষয়ে ফরম ফি ১০০/-(একশত) টাকা, ভর্তি ফি ২০০/-(দুই শত )টাকা এবং মাসিক ফি ৭০/- (সত্তর ) টাকা  । ভর্তির সময় বিষয়প্রতি 

    একবছরের ফি সহ সর্বমোট ১১৪০/- (এক হাজার একশত চল্লিশ টাকা) টাকা এককালীন পরিশোধ করতে হয়।

*   ভর্তির জন্য নির্ধারিত আবেদনপত্র সংগ্রহপূর্বক আবেদন করতে হবে। আবেদনপত্র প্রশিক্ষণার্থীর এক কপি পাসপোর্ট আকারের ছবি ও জন্ম নিবন্ধন সনদের সত্যায়িত ফটোকপি সহ জমা দিতে হবে।

 

কম্পিউটার প্রশিক্ষণ:

*   ভর্তির সর্বনিম্ন বয়স বয়স ৮ বছর এবং সর্বোচ্চ ১৬ বছর।

*  তিন মাস মেয়াদী কোর্সের ভর্তি ফি বাবদ এককালীন ১০৪০/- (এক হাজার চল্লিশ) টাকা পরিশোধ করতে হয়।

*   নির্ধারিত আবেদনপত্রে এক কপি পাসপোর্ট সাইজের ছবি এবং জন্মসনদ-এর সত্যায়িত ফটোকপিসহ আবেদন করতে হবে।

 

শিশু বিকাশ ও প্রাক-প্রাথমিক শিক্ষা কর্মসূচি:

গৃহীত এ কর্মসূচিতে দু:স্থ ও গরীব শিশুদের জন্য বিনামূল্যে শিক্ষা উপকরণ এবং পোষাক প্রদান করা হয়। ৩-৪ বছর বয়সী শিশুদের শিশু বিকাশে এবং ৫ বছর বয়সী শিশুদের প্রাক-প্রাথমিক কর্মসূচিতে ভর্তি করা হয়। জানুয়ারি মাসে ভর্তি কার্যক্রম শুরু হয়।

প্রদেয় সেবাসমুহের তালিকা

সিটিজেন চার্টার

বাংলাদেশ শিশু একাডেমী, সিলেট এর সিটিজেন চার্টার

 

গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অধীন বাংলাদেশ শিশু একাডেমী একটি স্বায়ত্বশাসিত প্রতিষ্ঠান। ১৯৭৬ সালে শিশু একাডেমীর কার্যক্রম চালু হয়। শিশুদের সুপ্ত প্রতিভা বিকাশের লক্ষে এ প্রতিষ্ঠানটি কাজ করে যাচ্ছে। এছাড়া শিশু একাডেমী শিশুদের সার্বিক কল্যানের লক্ষ্যে শিশু শ্রম, বাল্যবিবাহ, শিশু নির্যাতন, শিশু পাচাররোধসহ সর্বোপরী শিশু অধিকার বাস্তবায়ন করার লক্ষ্যে বর্তোমানে এ প্রতিষ্ঠানের সেবা সমূহ নিম্নে উল্লেখ করা হলো।

ক্রমিক নং

সেবার ধরন

সেবা গ্রহণকারী সংস্থা/ব্যক্তি

সেবার বিবরণ

সেবা প্রদানের স্থান

সেবা প্রদানের সময়সীমা

শিশু বিকাশ কেন্দ্র ও প্রাক প্রাথমিক শিক্ষা কর্মোসূচী

০-৫ বছর বয়সী শিশু

প্রতি কেন্দ্রে ২৫-৩০ জন শিশুকে শিশু বিকাশ ও প্রাক প্রাথমিক শিক্ষা দেওয়া হচ্ছে। কোর্সের মেয়াদ ১ বছর। সংশ্লিষ্ট শিশুদের নিয়মিত পোশাক, নাস্তা ও ঔষধ সামগ্রী বিনামুল্যে বিতরন করা হয়। এছাড়া নিয়মিতভাবে শিশুদের পারিবারিক অবস্থান সম্পর্কে খোজখবর রাখাসহ চিকিৎসকের মাধ্যমে স্বাস্থ্যসেবা প্রদান করা হয়

বাংলাদেশ শিশু একাডেমী

কার্যালয়, সাতক্ষীরা

আবেদনের তারিখ থেকে এক মাসের মধ্যে ভর্তি সম্পন্ন করা হয়

শিশু মনন, মেধা ও সাংস্কৃতিক বিকাশ

৬ থেকে ১৩ বছর বয়সী শিশু

শিশুদের জন্য বিভিন্ন পুস্তক প্রকাশনা,লাইব্রেরী পরিচালনাসহ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়

 

শিশুদের সাংস্কৃতিক প্রশিক্ষন

৬ থেকে ১৩ বছর বয়সী শিশু

সাংস্কৃতিক বিভাগের মাধ্যমে শিশুদেরকে সংগীত, চিত্রাংকন, নৃত্য প্রভৃতি বিষয়ে প্রশিক্ষন প্রদান করা হয়। প্রতি বছর জানুয়ারী মাসে শিশুদের ভর্তি করা হয়্ মাসিক বেতন ৩০/-টাকা, ভর্তি ফি ৭০/-টাকা। এক বছরে এককালীন ৪৩০/- টাকা দিয়ে ভর্তি হওয়া যায়। অস্বচ্ছল অভিভাবকের আবেদনের প্রেক্ষিতে তাদের শিশুদের এবং প্রতিবন্ধী শিশুদের বিনামূল্যে প্রশিক্ষন দেয়া হয়।কোর্সের শেষে সনদপত্র প্রদান করা হয়

প্রতি বছর জানুয়ারী মাসে শিশুদের ভর্তি করা হয়। ২-৩ বছর মেয়াদী কোস

শিশুদের কম্পিউটার প্রশিক্ষন

৮ থেকে ১৪ বছর বয়সী শিশু

কোর্সের মেয়াদ ৬ মাস। প্রতি ব্যাচে ২০ জন শিশু ভর্তি হতে পারবে। কোর্সের শেষে সনদপত্র প্রদান করা হয়

প্রতি ৬ মাস অন্তর

 

শিশুদের জন্য পুস্তক প্রকাশনা লাইব্রেরী ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান

সকল বয়সের শিশু

শিশুদের জন্য বিভিন্ন পুস্তক প্রকাশনা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়

সারা বছরব্যাপী

সিসিমপুর আউটরীচ প্রকল্প

প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিশু অভিভাবক ও শিক্ষক মন্ডলী

২টি ভ্যান ও সিসিমপুর আংকেল দ্বারা জেলা সদরের ৫০টি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নিয়মিত সিসিমপুর নাটক প্রদর্শনের মাধ্যমে শিশুদের মেধা বিকাশের কার্যক্রম ৩১শে ডিশেম্বর ২০১৩ শেষ হয়েছে। এই প্রকল্পের মাধ্যমে অভিবাবক ও শিক্ষকদের শিশুর পরিচর্যা, স্বাস্খ ও স্বাস্থকর অভ্যাস সম্পর্কে সচেতনতা সৃষ্টি হয়েছে।

সদর উপজেলাধীন ৫০টি প্রাথমিক বিদ্যালয়

০-৫ বছর বয়সী শিশু

লোকাল ক্যাপাসিটি বিল্ডিং এন্ড কমিউনিটি ইমপাওয়ারমেন্ট (এলসিবিসিই)

০-১৮ বছর বয়সী সকল শিশু

লোকাল ক্যাপাসিটি ব্লিডিং এন্ড কমিউনিটি ইমপাওয়ারমেন্ট (এলসিবিসিই) প্রকল্প ইউনিসেফের আর্থিক সহায়তায় ও জেলা প্রশাসনের সার্বিক তত্ত্বাবধানে সাতক্ষীরা জেলার ২টি উপজেলায় আশাশুনি ও শ্যামনগরে এই কর্মোসূচী বাস্তবায়ন হচ্ছে। ২০১৬ সাল পর্যোন্ত এই প্রকল্পের মেয়াদে মূলত স্থানীয় সরকার ব্যবস্থাকে ধাপে ধাপে উন্নয়নের মাধ্যমে বর্তোমন সরকারের ভিশন ২০২১ বাস্তবায়নের লক্ষ্যমাত্রা নিয়ে কাজ করছে। কর্মোসূচিটি ইতোমধ্যে শিশুদের উন্নয়নে ব্যাপক প্রশংসা কুড়িয়েছে।

আশাশুনি ও শ্যামনগর উপজেলার মোট (৮টি+৮টি)=১৬টি ইউনিয়ন (বুধহাটা, শ্রীউলা, আনুলিয়া, বড়দল, কাদাকাটি, দরগাহপুর, প্রটাপনগর, খাজরা, মুন্সিগঞ্জ, রমজাননগর, কৈখালী, ঈশ্বরীপুর, শ্যামনগর সদর, কাশিমাড়ি, বুড়িগোয়ালিনী, আটুলিয়া)

৩ বছর (সরকারি বিধিমতে নবায়নযোগ্য)

তথ্য অধিকার

বিজ্ঞপ্তি

আইন ও সার্কুলার